দোষী সাব্যস্ত হওয়ার পর এই প্রথম স্ত্রীকে নিয়ে মুখ খুললেন ট্রাম্প

বাংলা পত্রিকা ডেস্ক
প্রকাশিত: ৩ জুন ২০২৪, ২০:০৬
...
‘ওর পক্ষে আদালতের এই রায় মেনে নেয়া খুবই কঠিন। খারাপ সময়ের মধ্যে রয়েছে ও।’ দোষী সাব্যস্ত হওয়ার পর এই প্রথম স্ত্রী মেলানিয়াকে নিয়ে মুখ খুললেন সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প। গত সপ্তাহে বিচারকগণ ট্রাম্পকে ২০১৬ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচারণার সময় প্রাক্তন পর্ণ তারকা স্টর্মি ড্যানিয়েলসকে ঘুষ দিয়ে মুখ বন্ধ এবং ব্যবসায়িক রেকর্ড জাল করার জন্য দোষী সাব্যস্ত করেছেন। এই রায়ের মধ্য দিয়ে তিনি প্রথম মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে অপরাধে দোষী সাব্যস্ত হলেন। যদিও বারবার বিচার প্রক্রিয়াকে কারচুপি ও রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত বলেছেন ট্রাম্প।

সপ্তাহান্তে ফক্স নিউজের সাথে একটি সাক্ষাৎকারে, ট্রাম্প প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন যে, আগামী নভেম্বরের মার্কিন নির্বাচনে সাফল্য হবে তার ‘প্রতিশোধ’। ট্রাম্প এই রায়কে চ্যালেঞ্জ করে উচ্চ আদালতে যাওয়ার কথা জানিয়েছেন। এই গোটা বিষয়টি নিয়ে একটিবারও সাবেক মার্কিন ফার্স্ট লেডি মেলানিয়ার কোনও প্রতিক্রিয়া মেলেনি। এমনকি বিচার চলাকালীন আদালতেও দেখা যায়নি মেলানিয়াকে। ছিলেন না স্বামীর পাশেও। ট্রাম্প দোষী সাব্যস্ত হওয়ার পরও কেন চুপ তিনি? এ নিয়ে সমালোচনা শুরু হতেই স্ত্রীর সামনে কার্যত ঢাল হয়ে দাঁড়ালেন ডনাল্ড ট্রাম্প।সংবাদমাধ্যমে সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে তিনি বলেন, ‘ওর পক্ষে এটা খুব কষ্টকর।

আমার পরিবারের কাছেও এটা মেনে নেয়া কঠিন। জেলে যেতে আমার কোনও আপত্তি নেই। তবে এই ঘটনা আমার উপর যত না অভিশাপ, আমার পরিবারের কাছে তা ঢের বেশি বিপর্যয়ের।’

ট্রাম্প জর্জিয়ার একটি মামলাসহ কয়েক ডজন অভিযোগের মুখোমুখি। ২০২০ সালের নির্বাচনের সময় জর্জিয়ায় প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের বিরুদ্ধে নির্বাচনী ষড়যন্ত্রের অভিযোগেও অভিযুক্ত।ফ্লোরিডায়-শ্রেণিবদ্ধ নথির অপব্যবহার করার অভিযোগে একটি ফেডারেল মামলার মুখোমুখি হয়েছেন ট্রাম্প।

সূত্র : বিবিসি

সর্বশেষ