ফুটপাতে ভিক্ষা করতেন কোটিপতি নারী, যেতেন গাড়িতে


প্রকাশিত: ২৩ জানুয়ারি ২০২৩, ১৯:০১
...
বিলাসবহুল দামি গাড়ি পার্ক করে দূরে ফুটপাতে হেঁটে এসে ভিক্ষা করতেন এক কোটিপতি নারী। এমন কাণ্ড ঘটেছে মধ্যপ্রাচ্যের দেশ সংযুক্ত আরব আমিরাতের আবুধাবিতে। পরে ওই নারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।খালিজ টাইমসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আবুধাবির পুলিশ জানিয়েছে, গত বছরের ৬ নভেম্বর থেকে ১২ ডিসেম্বরে অভিযান চালিয়ে ১৫৯ জন ভিক্ষুককে গ্রেফতার করা হয়। এতে ওই কোটিপতি নারীও গ্রেফতার হন।

পুলিশ জানায়, ওই নারীর ভিক্ষা করা নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করে একজন ব্যক্তি পুলিশকে জানিয়েছিল। পরে তাকে পর্যবেক্ষণ করে দেখা যায় তিনি বিভিন্ন মসজিদের সামনে ভিক্ষা করেন। ভিক্ষা শুরুর আগে তিনি বিলাসবহুল গাড়িতে করে বাড়ি থেকে বের হতেন। এর পর গাড়ি পার্ক করে কিছুটা দূরে ভিক্ষার জায়গায় যেতেন। পরে খোঁজ নিয়ে দেখা যায়, তিনি কোটি টাকার মালিক। তবে টাকার পরিমাণ জানা যায়নি।

এ ঘটনায় ওই নারীর নগদ টাকা জব্দ করা হয়েছে ও তার বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে। কর্তৃপক্ষের মতে, ভিক্ষা করা একটি সামাজিক অভিশাপ যা যেকোনো সমাজের সভ্য ভাবমূর্তিকে ক্ষুণ্ন করে।

পুলিশ জানিয়েছে, ভিক্ষা করা সমাজে একটি অসভ্য কাজ এবং সংযুক্ত আরব আমিরাতে একটি অপরাধ হিসেবে গণ্য করা হয়। ভিক্ষুকদের জন্য প্রতারণার সম্ভাবনা রয়েছে এবং তারা মানুষকে ঠকায়।

আরব আমিরাতের আইন বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, দেশটিতে ভিক্ষা করার শাস্তি তিন মাস কারাদণ্ড এবং পাঁচ হাজার রিয়াল জরিমানা বা দুটির একটি। এ ছাড়া সংগঠিত ভিক্ষাবৃত্তির শাস্তি হলো ছয় মাসের কারাদণ্ড এবং এক লাখ রিয়াল জরিমানা।

পুলিশ জানিয়েছে, জনসাধারণের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে এবং ভিক্ষার মতো খারাপ কাজ বন্ধ করতে আমিরাতজুড়ে একটি সমন্বিত পরিকল্পনার মাধ্যমে প্রচেষ্টা জোরদার করা হয়েছে। এ ছাড়া রমজান মাসে ভিক্ষাবৃত্তির বিরুদ্ধে একটি বিশেষ দল কাজ করে।

পুলিশ বলছে, আরব আমিরাত সরকারে একটি সংস্থা দাতব্যর জন্য কাজ করে। কারও কোনো কিছুর প্রয়োজন হলে সেখানে নিবন্ধন করতে হয়। নিবন্ধনের পরেই পৌঁছে যায় পণ্য বা প্রয়োজনীয় জিনিস।

সর্বশেষ

সর্বশেষ